Wednesday, 10 June 2020

৫ম শ্রেণি পাস আবদুল নূর বর্তমানে খালাসি থেকে প্রকৌশলী

খালাসি থেকে প্রকৌশলী ৫ম শ্রেণি পাস
আবদুল নূর

ঊর্ধ্বতন উপসহকারী প্রকৌশলী আবদুল নূর

সুনামগঞ্জে ছাতকে ঊর্ধ্বতন উপসহকারী প্রকৌশলী/কার্য ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে বাংলাদেশ রেলওয়ে ছাতক (অতিরিক্ত দায়িত্ব) ৫ম শ্রেণি পাস আবদুল নূর এখনও বহাল তাবিয়তে রয়েছেন। তার বিরুদ্ধে সীমাহীন অভিযোগ থাকার পরও ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে, বিআর ও সিএসপির গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করছেন দাপটের সঙ্গে। ভোলাগঞ্জ-ছাতক রোপওয়ের ট্রেসেল সুরক্ষা বোল্ডার-পাথর তুলে বিক্রি, বাসাবাড়ি, দোকান, বিভিন্ন স্থাপনা, নদী পাড়ের ডাম্পিং সাইট বহিরাগতদের কাছে ভাড়া দিয়ে সরকারের লাখ লাখ টাকা লুটপাট ও আত্মসাৎ করছেন বলে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠে।

অভিযোগে জানা গেছে, আবদুল নূর ছাতক পৌর শহরের বাগবাড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে ৫ম শ্রেণি পাস করে ১৯৮৬ সালে ইলেকট্রিক খালাসি পদে ছাতক বাজার দফতরে চাকরিতে যোগদান করেন। ১৯৯৩ সালে কার্পেন্টার-হেলপার এবং ২০১১ সালে ওয়ার্ক সুপারভাইজার পদে পদোন্নতির পর প্রায় ৮ বছর আগে বিভিন্ন অনিয়ম-দুর্র্নীতি ও রেলওয়ের স্লিপার, লোহা, পাথর চুরি করে বিক্রি করার অভিযোগে তাকে ঢাকায় বদলি করা হয়। ২০১৪ সালে আবার ছাতকে বদলি হয়ে আসেন। পরে রোপলাইন (টিএলআর) অস্থায়ী কর্মচারীর বেতন আত্মসাৎ ও ভোলাগঞ্জের পাথর চুরির অভিযোগে ২০১৫ সালে ময়মনসিংহের জামালপুরে আবার তাকে বদলি করা হয়। পরে জামালপুর হতে সিলেট বদলি হন ওয়ার্ক সুপারভাইজার পদে।

শেয়ার করুন

0 Please Share a Your Opinion.: